হরিরামপুরে পদ্মায় বিলীন আজিমনগর ইউনিয়ন স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স

পদ্মায় বিলীন আজিমনগর
পদ্মায় বিলীন আজিমনগর

মানিকগঞ্জের হরিরামপুরের চরাঞ্চলের আজিমনগর ইউনিয়ন স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ভবন পদ্মা ভাঙনে বিলীন হয়ে গেছে। শনিবার দিবাগত রাতে ভবনটি পদ্মায় বিলীন হয়ে যায়। এদিকে পদ্মা ভাঙনে হুমকির মুখে আজিম নগর ইউনিয়নের ৬,৭,৮,৯ নং ওয়ার্ড। এই চারটি ওয়ার্ডে আজিম নগর ইউনিয়নের গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনার মধ্যে চর অঞ্চলের একমাত্র এমপিওভুক্ত আজিমনগর ইউনিয়ন উচ্চ বিদ্যালয়, ৫৭নং হারুকান্দি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, হাতিঘাটা আশ্রয় প্রকল্প, ইব্রাহিমপুর জামে মসজিদ ও মাদ্রাসা রয়েছে। দ্রুত ভাঙনরোধে ব্যবস্থা না নেয়া হলে পদ্মায় বিলীন হয়ে যাবে।

বিস্তারিত দেখুন বিজ্ঞাপনে টাচ করে।
বিস্তারিত দেখুন বিজ্ঞাপনে টাচ করে।

জানা যায়, ২০০৮ সালে হরিরামপুরের চরাঞ্চলে আজিমনগর ইউনিয়ন স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নির্মিত হয়। ভাঙনরোধে ব্যবস্থা গ্রহণ করতে ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ বিল্লাল হোসেন উপজেলা প্রশাসন ও পানি উন্নয়ন বোর্ডকে একাধিকবার জানিয়েছেন। এছাড়া ভাঙনরোধে ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্যে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ সাইফুল ইসলাম ও উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ইসরাত জাহান পানি উন্নয়ন বোর্ডে একাধিকবার প্রতিবেদন পাঠালেও ভাঙনরোধে কোন ব্যবস্থা নেয়া হয়নি বলে জানা গেছে।

বিস্তারিত দেখুন বিজ্ঞাপটিতে টাচ করে।
বিস্তারিত দেখুন বিজ্ঞাপনটিতে টাচ করে।

আজিমনগর ইউনিয়নের হালুয়াঘাট এলাকার মো: নাসির উদ্দিন বলেন, পদ্মা ভাঙনে হুমকির মুখে আজিম নগর ইউনিয়নের ৬,৭,৮,৯ নং ওয়ার্ড। এই চারটি ওয়ার্ডে আজিম নগর ইউনিয়নের গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনার মধ্যে চর অঞ্চলের একমাত্র এমপিওভুক্ত আজিমনগর ইউনিয়ন উচ্চ বিদ্যালয়, ৫৭নং হারুকান্দি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, হাতিঘাটা আশ্রয় প্রকল্প, ইব্রাহিমপুর জামে মসজিদ ও মাদ্রাসা। দ্রুত ভাঙনরোধে ব্যবস্থা না নেয়া হলে পদ্মায় বিলীন হয়ে যাবে। আমরা চরাঞ্চলের লোকজন ত্রান চাই না ভাঙ্গন রোধে স্থায়ী বেড়িবাঁধ চাই৷

বিস্তারিত দেখুন বিজ্ঞাপনে টাচ করে।
বিস্তারিত দেখুন বিজ্ঞাপনে টাচ করে।

স্কুল ভবন থেকে ১৫০ মিটার অদূরে পদ্মা নদী জানিয়ে আজিমনগর ইউনিয়ন উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক চৌধুরী আওলাদ হোসেন বিপ্লব বলেন, ইউনিয়ন স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ভবন পদ্মায় বিলীন হয়ে গেছে। দ্রুত ভাঙনরোধে ব্যবস্থা না নেয়া হলে প্রায় দু কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত আমার স্কুল ভবনটি ও পদ্মায় বিলীন হয়ে যাবে’।

আজিমনগর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ বিল্লাল হোসেন বলেন, ইউনিয়ন স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে রক্ষার জন্য একাধিকবার উপজেলা প্রশাসনকে জানিয়েছি। ইউএনও মহোদয় ও পানি উন্নয়ন বোর্ডকে জানিয়েছেন। তবে কাজ শুরু না হওয়ায় ভবনটি পদ্মায় বিলীন হয়ে গেছে।

বিস্তারিত দেখুন বিজ্ঞাপনে টাচ করে।
বিস্তারিত দেখুন বিজ্ঞাপনে টাচ করে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ সাইফুল ইসলাম বলেন, ‘আজিমনগর ইউনিয়ন স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ভবনসহ আজিমনগরে পদ্মার ভাঙণ রক্ষায় একাধিকবার পানি উন্নয়ন বোর্ডে প্রতিবেদন পাঠিয়েছি। উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা নিজে গিয়ে পানি উন্নয়ন বোর্ডে লিখিতভাবে জানিয়েছেন। তবে এখনো কোন ব্যবস্থা নেয়া হয়নি’।

পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মাইন উদ্দিন বলেন, আজিমনগর এলাকায় পানির স্রোত বেশি থাকায় জিও ব্যাগ ফেলা হলেও ভবনটি রক্ষা করা যেতোনা। আর চরাঞ্চলে স্থায়ী বাঁধ দেয়ারও সুযোগ নেই বলে জানান তিনি।

————————–

সামাজিক বাস্তবতার উপর নির্মিত নাটক-শর্ট ফিল্ম দেখতে নিচের ছবিটিতে টাচ করুন করুন-

উপরের ছবিটিতে ক্লিক করুন।
উপরের ছবিটিতে ক্লিক করুন।

এফএম নিউজ

আপনার এগিয়ে যাওয়ার সঙ্গী

বিজ্ঞাপন+বার্তা বিভাগঃ01831106108